সন্তান প্রসবের আধা ঘণ্টা পরেই পরীক্ষা দিলেন মা

এই দুনিয়ায় অসম্ভব বলে কিছুই নেই। প্রয়োজন শুধু সদিচ্ছার। তেমনই এক অসম্ভবকে সম্ভব করে দেখালেন ইথিওপিয়ার মেতু অঞ্চলের এক নারী। সন্তান জন্ম দেয়ার আধ ঘণ্টা পরেই স্নাতক পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করলেন তিনি। পড়াশোনা, আর পরীক্ষার প্রতি এমন অপার আগ্রহ দেখে ওই নারীকে কুর্নিশ জানিয়েছেন নেটদুনিয়ার মানুষজন।

পশ্চিম ইথিওপিয়ার ২১ বছর বয়সী ওই নারীর নাম আলমাজ ডেরেসে। রমজানের জন্যই পিছিয়ে গিয়েছিল তার স্নাতক পরীক্ষা। আর সেই পরীক্ষা এমন দিনে এসে দাঁড়াল, সেই দিনই তিনি জন্ম দিতে চলেছেন সন্তানের। কিন্তু তাতে কী? গ্র্যাজুয়েট হওয়ার জন্য আরো এক বছর অপেক্ষা করবেন? সেসব ভেবেই হাসপাতালকেই পরীক্ষাকেন্দ্র বানিয়ে সেখানেই গ্র্যাজুয়েট হওয়ার স্বপ্নতরীতে ভেসে পরীক্ষা দিলেন আলমাজ়।
 
তিনি নতুন মা। আবার প্রতি বছরে যে নতুন মুখগুলো গ্র্যাজুয়েট হচ্ছে, সেখানেও তিনি নতুন। সন্তানের জন্মের পর পরীক্ষা দিয়ে আলমাজ জানান, ‘পড়াশোনা, ক্যারিয়ার আমার জীবনে অন্য অর্থবহন করে। রমজানের জন্য পরীক্ষা পিছিয়ে যাওয়ায় আমি একটু মুষড়ে পড়েছিলাম। কিন্তু তা আমাকে এক ফোঁটাও দোলাতে পারেনি। আর আমার ডেলিভারি খুব ভালো ভাবেই হয়েছিল। তাই ঠিক করে ফেলি, হাসপাতালে বসেই পরীক্ষা দেব।’ খবরঃ ডেইলি বাংলাদেশ ডট কম 

আলমাজ’র এমনতর প্রয়াসে তার প্রশংসায় পঞ্চমুখ ট্যুইটার থেকে ফেসবুকের মানুষজন। কেউ তাকে স্যালুট জানিয়েছেন। কেউ আবার তার কাছে মনোবল বাড়ানোর সহজ টোটকা চেয়ে নিয়েছেন। কেউ কেউ তাকে আর তার সদ্যোজাতকেও শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।

Related Posts

Add Comment