ডেমরার ছেলে ফাহিমের ফ্রান্স জয়

ঠিক যেন ফ্রান্স জয় করলেন ডেমরার ছেলে ফাহিম মোহাম্মদ। তার উঠে আসার গল্পে মুগ্ধ হয়ে চলচ্চিত্র বানিয়েছেন ফরাসি পরিচালক পিয়ের-ফ্রঁসোয়া মার্তা-লাভাল। সেটার নামও ‘ফাহিম’। ছবিতে দেখা যাবে ফ্রান্সের বিখ্যাত অভিনেতা জেরার দেপার্দ্যুকে।

ঢাকার ডেমরার ফাহিমের গল্পটা শুরু হয় ২০০৮ সালে। মাত্র ৮ বছর বয়সে বাবা নূরে আলমের সঙ্গে ফ্রান্স পাড়ি দেয় ফাহিম। রাজনৈতিক আশ্রয়ে তার বাবা সে দেশে থাকার চেষ্টা করেন। দুই বছর পর তা প্রত্যাখ্যাত হয়। প্যারিসে অবৈধ অভিবাসী হিসেবে কাটতে থাকে তাদের জীবন। এর মধ্যে আশীর্বাদ হয়ে আসে ফাহিমের দাবা খেলা। ছোটবেলা থেকে দাবাই ফাহিমের ধ্যান-জ্ঞান। সেটা এতটাই যে অবৈধ প্রবাসজীবনের দুঃসময়েও দাবার তালিম নিতে থাকে। একসময় ফ্রান্সের জাতীয় দাবা দলের সাবেক প্রশিক্ষক জাভি পারমন্টিয়েরের কাছে প্রশিক্ষণ নিতে শুরু করেন তিনি। এরপরই পাল্টে যেতে থাকে ফাহিমের জীবন।

‘ফাহিম’ চলচ্চিত্রের একটি দৃশ্য
‘ফাহিম’ চলচ্চিত্রের একটি দৃশ্য

ভালো প্রশিক্ষণ পেয়ে একে একে বিভিন্ন প্রতিযোগিতার শিরোপা জিততে থাকে ফাহিম। ২০০৮ সালে ও ২০১৮ সালে ফাহিম মোহাম্মদছেলের সাফল্যের সুবাদে ২০১২ সালের ১১ মে তিন মাসের অস্থায়ী ওয়ার্ক পারমিট পান নূরে আলম। ফাহিম ভর্তি হয়ে যায় স্কুলে। ২০১৩ সালে গ্রিসে অনুষ্ঠিত বিশ্ব দাবা স্কুল চ্যাম্পিয়নশিপে অনূর্ধ্ব-১৩ বিভাগে সেরা হয়েছে সে। ইউরোপীয় চ্যাম্পিয়নশিপেও খেলেছেন ফাহিম। বিশ্ব জুনিয়র দাবায় চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন তিনি। অবশেষে তাকে ঘিরে আলোচনা ছড়িয়ে পড়ে ফরাসি গণমাধ্যমে।

ফাহিমের জীবনের এই গল্প নিয়ে ২০১৪ সালে ‘আ ক্ল্যানডেস্টাইন কিং’ নামে একটি বই প্রকাশিত হয়। সে বই থেকেই এই ছবি। তবে ছবির বাংলাদেশ অংশের শুটিং হয়েছে ভারতে। কলকাতা ও উত্তর চব্বিশ পরগনায়। প্যারিসে তো হয়েছেই। খবরঃ ডেইলি বাংলাদেশ ডট কম 

ফাহিমের বয়স এখন ১৯। তার গল্পে তৈরি হওয়া চলচ্চিত্রটিতে নাম ভূমিকায় অভিনয় করেছেন আহমেদ আসাদ। নূরে আলম চরিত্রে থাকছেন মিজানুর রহমান। দু’জনই প্রবাসী বাংলাদেশি। ফাহিমের কোচ জাভি পারমন্টিয়েরের ভূমিকায় অভিনয় করেছেন জেহার্দ দেপারদ্যু। চলতি বছরের ১৬ অক্টোবর ফ্রান্সে মুক্তি পাবে ‘ফাহিম’।

Related Posts

Add Comment